জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে না-হারার রেকর্ড অব্যাহত রাখতে চায় পাকিস্তান

0
62
জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে না-হারার রেকর্ড অব্যাহত রাখতে চায় পাকিস্তান

আপডেট »০৭≈ নভেম্বর ≈ ২০২০
 গৃহকোণ স্পোর্টস ডেস্কঃ টি-টুয়েন্টিতে এখন পর্যন্ত জিম্বাবুয়ের কাছে কোন ম্যাচ হারেনি পাকিস্তান। ১১বার মুখোমুখি হয়ে সবগুলোতেই জিতেছে তারা। জিম্বাবুয়ের কাছে না-হারার রেকর্ড ধরে রাখার মিশন নিয়ে শনিবার তিন ম্যাচের টি-টুয়েন্টি সিরিজ শুরু করছে পাকিস্তান। ওয়ানডে সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতেছে পাকিস্তান। পক্ষান্তরে ওয়ানডে সিরিজে শেষ ম্যাচের জয়ে আত্মবিশ্বাসী জিম্বাবুয়ে। টি-টুয়েন্টিতে ভালো ফল আশা করছে সফরকারীরা। রাওয়ালপিন্ডিতে বাংলাদেশ সময় বিকেল ৪টা ৩০ মিনিটে শুরু হবে সিরিজের প্রথম টি-টুয়েন্টি। করোনার কারণে দীর্ঘদিন পর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজ আয়োজন করে দেশের মাটিতে ক্রিকেট ফেরায় পাকিস্তান। ওয়ানডে সিরিজ দিয়ে লড়াই শুরু করে তারা। প্রথম দুই ওয়ানডে জিতে সিরিজ নিজেদের করে নেয় পাকিস্তান। ২৬ রানে ও ৬ উইকেটে ঐ দু’টি ম্যাচ জিতে পাকিস্তান। তবে তৃতীয় ম্যাচে দুর্দান্ত লড়াই করে জিম্বাবুয়ে। সিন উইলিয়ামসের সেঞ্চুরিতে ৬ উইকেটে ২৭৮ রান করে তারা। এরপর পাকিস্তানকে চাপে ফেলে দিয়েছিলো তারা। তবে শেষদিকে ভাগ্যের জোড়ে হার এড়িয়ে ম্যাচটি টাই করে পাকিস্তান। ফলে সুপার ওভারে গড়ায় ম্যাচটি। আর সেখানে পাকিস্তানকে বিধ্বস্ত করে জিম্বাবুয়ে। ওয়ানডে সিরিজটি বিশ্বকাপ সুপার লিগের অংশ ছিলো। ফলে সিরিজ থেকে পাকিস্তান ২০ পয়েন্ট ও জিম্বাবুয়ে ১০ পয়েন্ট অর্জন করতে পারে। শেষ ম্যাচের জয় টি-টুয়েন্টিতে দলকে আত্মবিশ্বাসী করেছে বলে জানান জিম্বাবুয়ের সাবেক অধিনায়ক ও প্রথম ওয়ানডেতে সেঞ্চুরি করা ব্রেন্ডন টেইলর। তিনি বলেন, ‘ওয়ানডেতে আমরা ভালো খেলেছি। প্রথম ম্যাচে লড়াই করেছি। শেষ ম্যাচে পাকিস্তানকে হারিয়েছি। এই জয়টি টি-টুয়েন্টি ভালো খেলতে আমাদের সহায়তা করবে।’ জিম্বাবুয়ের কাছে ১০ পয়েন্ট হারিয়ে হতাশা ঝড়েছিলো পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমের কন্ঠে। তবে টি-টুয়েন্টি ভালো করতে মুখিয়ে আছেন তিনি, ‘এই ফরম্যাটে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আমাদের রেকর্ড ভালো। এখনো কোন ম্যাচ হারেনি পাকিস্তান। সেই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রেখেই সবগুলো ম্যাচই জিততে চাই আমরা।’ পাকিস্তান দল : বাবর আজম (অধিনায়ক), শাদাব খান, আব্দুল্লাহ ফিক, ফাহিম আশরাফ, ফখর জামান, হায়দার আলি, হারিস রউফ, ইফতেখার আহমেদ, ইমাদ ওয়াসিম, খুশদিল শাহ, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ হাসনাইন, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মুসা খান, রোহাইল নাজির, শাহিন শাহ আফ্রিদি, উসমান কাদির, ওয়াহাব রিয়াজ ও জাফর গোহার। জিম্বাবুয়ে দল : চামু চিবাবা (অধিনায়ক), ফারাজ আকরাম, রায়ান বার্ল, ব্রায়ান চারি, টেন্ডাই চাতারা, ওয়েসলে মাধভেরে, ওয়েলিংটন মাসাকাদজা, কার্ল মুমবা, রিচমন্ড মুতুম্বামি, বেøসিং মুজারাবানি, এল্টন চিগুম্বুরা, টেন্ডাই চিসোরো, ক্রেইগ আরভিন, তিনাশে কামুনহুকামুই, রিচার্ড গারাভা, সিকান্দার রাজা, মিল্টন শুমবা, ব্রেন্ডন টেলর, ডোনাল্ড তিরিপানো এবং শন উইলিয়ামস।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন