তদন্ত রিপোর্ট এলেই বিস্ফোরণের প্রকৃত কারণ বলা যাবে: জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী

0
73
তদন্ত রিপোর্ট এলেই বিস্ফোরণের প্রকৃত কারণ বলা যাবে: জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী

আপডেট » ০৬ ≈ সেপ্টেম্বর ≈ ২০২০

গৃহকোণ প্রতিবেদক: নারায়ণগঞ্জের ওই এলাকায় এলোমেলোভাবে গ্যাসের পাইপ লাইন নেওয়া হয়েছে উল্লেখ করে বিদ্যুৎ ও জ¦ালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু বলেছেন, মসজিদের ফ্লোরের নিচে থাকা গ্যাসের পাইপ লাইনের লিকেজ থেকে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটতে পারে, তবে তদন্ত রিপোর্ট আসলেই বিস্ফোরণের প্রকৃত কারণ বলা যাবে। গতকাল শনিবার দুপুরে রাজধানীর শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে চিকিৎসাধীন দগ্ধদের দেখে বেরিয়ে যাওয়ার সময় সাংবাদিকদের একথা বলেন বিদ্যুৎ ও জ¦ালানি প্রতিমন্ত্রী। নসরুল হামিদ বিপু বলেন, নারায়ণগঞ্জের ওই এলাকাটি অনেক ঘনবসতিপূর্ণ। রাস্তার পাশ দিয়ে এলোমেলোভাবে গ্যাসের পাইপ লাইন চলে গেছে। আর গ্যাস পাইপ লাইনের উপর দিয়ে ওই মসজিদের ফ্লোর করা হয়েছে। সেখান থেকেই লিকেজে বিস্ফোরণ ঘটতে পারে। তবে তদন্ত রিপোর্ট এলে ঘটনার প্রকৃত কারণ বলা যাবে। তিনি বলেন, এখন পর্যন্ত ১৬ জন মারা গেছেন। বাকিদের অবস্থাও আশঙ্কাজনক বলে জানতে পেরেছি। তাদের সু-চিকিৎসার জন্য দায়িত্বশীল সবাই যোগাযোগ রাখছেন। তিনি বলেন, নারায়ণগঞ্জের এ ঘটনায় কারো গাফিলতি পাওয়া গেলে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। যেসব মসজিদে এসি ব্যবহার করা হচ্ছে, সেসব মসজিদে উন্নত মানের সার্কিট ব্রেকার ব্যবহার করা এবং সাবধানতার সঙ্গে এসব এসি ব্যবহার করতে হবে। এর আগে গত শুক্রবার রাত পৌনে ৯টায় নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার পশ্চিমতল্লা এলাকার বাইতুস সালাত জামে মসজিদে এসি বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এরপর দগ্ধ ৩৭ জনকে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন অ্যান্ড প্লাস্টিক ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিকেল পর্যন্ত ১৬ জনের মৃত্যু হয়। বাকি মুসল্লিদের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন