ইরানের ১৩০ অ্যাকাউন্ট মুছলো টুইটার

0
119
ইরানের ১৩০ অ্যাকাউন্ট মুছলো টুইটার

আপডেট »০৩≈ অক্টোবর ≈ ২০২০
গৃহকোণ আইটি ডেস্কঃ প্রথম মার্কিন প্রেসিডেনশিয়াল বিতর্ক চলাকালে টুইটার ব্যবহারকারীদের গণ আলোচনায় বিগ্ন ঘটানোর চেষ্টা করছিলো কয়েকটি অ্যাকাউন্ট। ওই অ্যাকাউন্টগুলো মুছে দিয়েছে টুইটার। মাইক্রোব্লগিং সাইটটি জানিয়েছে, সবমিলিয়ে ১৩০টি অ্যাকাউন্ট মুছেছে তারা। মুছে দেওয়া অ্যাকাউন্টগুলো ইরান থেকে তৈরি হয়েছে। রয়টার্স জানিয়েছে, “এফবিআইয়ের দেওয়া তথ্যের” ভিত্তিতে অ্যাকাউন্টগুলোর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। মুছে দেওয়া অ্যাকাউন্টগুলোর একটি থেকে টুইট এসেছিল, “তোমরাও কী মজা পাওয়ার জন্য দেখছো?” ঠিক কেন ভোটাররা বিতর্ক দেখার পরিকল্পনা করেছে, সে বিষয়টি ওই টুইটের সঙ্গে থাকা এক ছবিতে তুলে ধরা হয়েছিল। টুইটার জানিয়েছে, খুব বেশি মানুষের কাছে ছড়াতে পারেনি অ্যাকাউন্টগুলো, ওই টুইটগুলোতে মানুষের প্রতিক্রিয়াও অনেক কম এসেছে। রাশিয়ান গোয়েন্দা সংস্থা ব্যবহার করতে পারে এমন টুইটার অ্যাকাউন্ট শনাক্ত করতে গত সপ্তাহে অপর সোশাল নেটওয়ার্ক ফেইসবুকের সঙ্গেও কাজ করেছে টুইটার। পরে এরকম সাড়ে তিনশ’ অ্যাকাউন্ট মুছে দিয়েছে প্ল্যাটফর্মটি। দুটি প্রতিষ্ঠানই জানিয়েছে, নভেম্বরের তিন তারিখের নির্বাচনে বিদেশি শক্তি ও সাইবার অপরাধীরা প্রভাব ফেলবে বলে সতর্কবার্তা জানিয়ে রেখেছে এফবিআই। গত দুই বছরে, বিশেষ করে ২০১৮ সালের মার্কিন মধ্যবর্তীকালীন নির্বাচনের পর থেকেই দেশটির জ্যেষ্ঠ গোয়েন্দা কর্মকর্তারা খোলাখুলিভাবেই জানিয়েছেন, রাশিয়া, চীন, ইরান এবং উত্তর কোরিয়া ২০২০ সালের মার্কিন প্রেসিডেনশিয়াল নির্বাচনে প্রভাব ফেলার চেষ্টা করবে। সামাজিক মাধ্যম প্রতিষ্ঠানগুলো ভুল তথ্য ঠেকানো প্রশ্নে ২০১৬ সালের নির্বাচনের পর থেকেই চাপের মুখে রয়েছে। রাশিয়া ওই নির্বাচনের ফলাফলে প্রভাব ফেলেছে এমনটাই দাবি মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার। তবে, এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে মস্কো।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন