বেলারুশের সরকারবিরোধী নেত্রীকে ‘অপহরণ’

0
51
বেলারুশের সরকারবিরোধী নেত্রীকে ‘অপহরণ’

আপডেট » ০৯ ≈ সেপ্টেম্বর ≈ ২০২০
গৃহকোণ আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ বেলারুশের সরকারবিরোধী নেত্রী মারিয়া কোলেস্নিকোভা অপহরণের শিকার হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে দেশটির গণমাধ্যম টুটবি জানায়, অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিরা তাকে ধরে নিয়ে গেছে। মুখোশপরা কয়েকজন ব্যক্তি মারিয়াকে একটি মিনিভ্যানে তুলে নেয়। রোববার সরকারবিরোধী গণবিক্ষোভের সূত্র ধরে নিরাপত্তাবাহিনী ৬৩৩ জনকে আটক করে। এরপর সোমবার মারিয়াকে অপহরণ করা হয়। আগস্টের নির্বাচনকে ঘিরে বিক্ষোভে এটিই সর্বশেষ বড় ঘটনা। এ দিকে রাশিয়ার ইন্টারফ্যাক্স নিউজ এজেন্সির খবর অনুযায়ী, মিনস্কের পুলিশ বলছে এই নেত্রীকে তারা গ্রেপ্তার করেনি। দেশটির দীর্ঘ সময়ের নেতা আলেক্সান্ডার লুকাশেঙ্কোকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ৯ আগস্টের রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের আগে বিক্ষোভে যোগ দেওয়া তিন নারী রাজনীতিবিদদের মধ্যে শেষজন মারিয়া কোলেস্নিকোভা। তিনি লুকাশেঙ্কোর কঠোর সমালোচক। নির্বাচন-পরবর্তী রাজনৈতিক সংকটে তার গুরুত্বপূর্ণ ভ‚মিকা রয়েছে। প্রেসিডেন্ট লুকাশেঙ্কোর বিরুদ্ধে ভোটচুরির অভিযোগ এবং নতুন নির্বাচনের দাবিতে ৯ আগস্ট থেকে বিক্ষোভে নামে বেলারুশের জনগণ। এতে সোভিয়েত সময়ের পর সবচেয়ে বড় বিক্ষোভে পড়েছে দেশটি। ১৯৯২ সালে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে নতুন রাষ্ট্র হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে বেলারুশ। এর মাত্র দুই বছর পর দেশটির ক্ষমতায় আসেন লুকাশেঙ্কো। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত প্রায় ২৬ বছর ধরে দেশের ক্ষমতা আঁকড়ে ধরে রেখেছেন তিনি। তাকে বলা হয় ইউরোপের শেষ স্বৈরাচার। ৯ আগস্ট নির্বাচনে অভাবনীয় ব্যবধানে জিতে ফের ক্ষমতায় আসেন লুকাশেঙ্কো। তবে তার বিরুদ্ধে ভোটচুরি ও অনিয়মের অভিযোগ এনে রাস্তায় নেমে আসে বেলারুশের মানুষ। একের পর এক বিক্ষোভে ভিত নড়ে উঠলেও ক্ষমতায় অটল লুকাশেঙ্কো। রাশিয়ার সরাসরি সমর্থনে বিক্ষোভ দমনেও সচেষ্ট তিনি।

উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন!
এখানে আপনার নাম লিখুন